মঙ্গলবার, ২২ জুন ২০২১, ০৬:৫২ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ:
কুড়িগ্রামে বিএনপি নেতার মৃত্যুতে জেলা বিএনপির শিশু বিষয়ক সম্পাদকের শোকবার্তা পাবনায় নিখোঁজ হওয়া শিশুকে ৩৬ ঘন্টার মধ্যে আশুলিয়া থেকে উদ্ধার করেছে পুলিশ নোয়াখালীতে ১২ মামলার আসামী অস্ত্রসহ গ্রেপ্তার পঞ্চগড়ে প্রতিবন্ধী ভাতা‘র টাকা মেরে দিলেন ইউপি সদস্য  রৌমারীতে পরকীয়ার জেরে যুবক খুন নওগাঁয় প্রধানমন্ত্রীর উপহার পেয়ে হাসি ফুটলো ৫০২ ভূমিহীন পরিবারের মুখে অষ্টম শ্রেণির শিক্ষার্থী ৪ মাসের অন্তঃসত্ত্বা! বন্ধ করে দেওয়া হবে ব্যাটারিচালিত রিকশা-ভ্যান জমি সহ সুসজ্জিত পাকাঘরে স্থায়ী নিবাস হচ্ছে কুড়িগ্রামের ১১শ ভূমিহীনের গৃহহীন পরিবারের মাঝে জমি ও গৃহ প্রদান কার্যক্রম ভার্চুয়ালে উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী 

স্বাস্থ্যবিধি মানছেন না অনেকেই,  রংপুরে করোনার ধরণ বোঝা যাচ্ছেনা 

জুয়েল বাবু, রংপুর প্রতিনিধি
  • Update Time : শনিবার, ৭ নভেম্বর, ২০২০

রংপুরে করোনার মতিগতি বোঝা যাচ্ছে না। করোনা রোগী শনাক্তের হার একেক দিন একেক রকম। কোনদিন শনাক্তের হার ৩ জন আবার কোন দিন শনাক্তের হার ২০ জনের ওপর। আসছে শীতে করোনা রোগী আক্রান্তের সংখ্যা বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করছেন বিভিন্ন মহল।

সরেজমিন ঘুরে দেখা যায় বিভিন্ন বাজার, রাস্তাঘাট এবং মহল্লার চায়ের দোকান গুলোতে দেদারসে স্বাস্থ্যবিধি লঙ্ঘন করা হচ্ছে।

রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল সুত্রে জানা যায়, গত পহেলা নভেম্বর ৯৪ জনের করোনা পরীক্ষা করে ১৮ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়। ৩১ অক্টোবর ৫০ জনের নমুনা সংগ্রহ করে ২ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। ২৯ অক্টোবর ১৫৪ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ১৩ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়। ২৮ অক্টোবর ১১৬ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ২০ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পিসিআর ল্যাব স্থাপনের পর এ পর্যন্ত ৩৩ হাজার ৯৮০ জনের করোনার নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এর মধ্যে করোনা পজিটভ রোগী পাওয়া যায় ৫ হাজার ৬৭৭ জন।

দেখা যায় গত আগষ্ট ও সেপ্টেম্বরে করোনা পরীক্ষা ও শনাক্তের হার বেশি থাকলে অক্টোবরে এসে পরীক্ষা ও শনাক্তের হার কিছুটা কমেছে। অক্টোবরের কোন দিন ২ থেকে ৩ জনের করোনা শনাক্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে। আবার কোন কোন দিন ৩০ জনের ওপরে শনাক্তের সংখ্যা হয়েছে। শনাক্তের হার অস্বাভাবিক হারে উঠানামা করায় রংপুরের চিকিৎসা বিশেষজ্ঞরা করোনার মতিগতি বুঝে উঠতে পারছেন না। কারণ শনাক্তের ধারাবাহিকতায় কোনদিন একেবারে কম আবার কোনদিন ১৫ থেকে ২০ এর অধিক।

এদিকে রংপুর জেলায় করোনা আক্রান্ত হয়ে এ পর্যন্ত মৃত্যু হয়েছে ৫২ জনের। অন্যান্য জেলার তুলনায় মৃত্যুর হার কম। এটাকে অনেকে ভালো লক্ষন বলে মনে করলে আসন্ন শীত নিয়ে শঙ্কিত সকলেই।

এদিকে সরকারি প্রচার প্রচারণা থাকা স্বত্বেও হাট-বাজার ও রাস্তাঘাটে স্বাস্থ্যবিধি ৮৫ শতাংশ মানুষই তা মানছেন না। মাস্ক ছাড়া দেদারসে ঘুরে বেড়াচ্ছে মানুষজন। তাদের হাবভাব দেখে মনে হয় দেশে করোনা বলে কোন কিছু নেই। এমন অবস্থা চলতে থাকলে যে কোন মুহূর্তে করোনা শনাক্তের হার বাড়তে পারে বলে মনে করছেন স্বাস্থ্য বিভাগের কর্মকর্তারা।

রংপুর জেলা সিভিল সার্জন ডা. হিরম্ব কুমার রায় জানান, রংপুরে করোনা শনাক্তের হার কমলেও মানুষের মাঝে সচেতনতা সৃষ্টি না হলে শীতে করোনার প্রভাব বাড়তে পারে।

 

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2020 dainikjonokotha.com
Theme Developed BY ThemesBazar.Com