সোমবার, ২৬ জুলাই ২০২১, ১২:৪৬ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ:
ফুলবাড়ীতে কঠোর লকডাউন কার্যকরে কঠোর প্রশাসন ফুলবাড়ীতে তরুণদের উদ্যোগে বিনামূল্যে অক্সিজেন সেবা চালু কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরীতে ৫শ দুস্থ্য পরিবার পেল ঈদ উপহার লালমনিরহাট পৌরবাসীকে ঈদুল আযহার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন, জনতার মেয়র রেজাউল করিম স্বপন ফুলবাড়ীতে কেটে নেয়া ধান গাছ থেকে ফের ধান উৎপাদন পঞ্চগড়ে নদী ভাঙ্গন রক্ষার দাবিতে স্থানীয়দের মানববন্ধন  জোরপূর্বক জমি দখলের চেষ্টা; সংবাদ সম্মেলনে ভুক্তভোগীরা ফুলবাড়ীতে ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে ঈদ উপহার বিতরণ সচ্ছলরা পেয়েছেন গৃহহীনদের ঘর, প্রতিবাদে কুড়িগ্রামে মানববন্ধন উলিপুরে ১০ ছাত্রলীগ নেতার বহিষ্কারাদেশ প্রত্যাহার

রংপুরে প্রতিবন্ধী নারীকে ধর্ষণের দায়ে অভিযুক্ত ব্যক্তির যাবজ্জীবন কারাদণ্ড 

রংপুর ব্যুরো প্রধান
  • Update Time : সোমবার, ১৮ জানুয়ারী, ২০২১

রংপুরের পীরগাছা উপজেলার এক প্রতিবন্ধী নারীকে ধর্ষণের ফলে সন্তান জন্মদানের ঘটনায় দায়েরকৃত মামলায় অভিযুক্ত ব্যক্তির যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত।

রোববার (১৭ জানুয়ারি) দুপুরে রংপুরের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনাল -২ এর বিচারক মোঃ রোকনুজ্জামান এ রায় প্রদান করেন। এবং ওই সন্তানের ভরনপোষণ প্রদানসহ ধর্ষকের ওয়ারিশ বলে ঘোষণা করেন বিচারক। এ রায় ঘোষণার সময় অভিযুক্ত মোঃ আবুল কালাম আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

আদালত ও মামলার বিবরণে জানা যায়, রংপুরের পীরগাছা উপজেলার হরিরাম গ্রামের বাক প্রতিবন্ধী এক নারীকে প্রায়ই উত্ত্যক্ত করতেন চাচাতো বোনের স্বামী প্রতিবেশী আব্দুল জলিলের পুত্র মোঃ আবুল কালাম। এ নিয়ে তাকে নিষেধ করা হলে ক্ষিপ্ত হয়ে ২০০৮ সালের ১ ডিসেম্বর বিকেলে সুকৌশলে ওই প্রতিবন্ধী নারীকে ধর্ষণ করেন আবুল কালাম। এর কিছুদিন পর ওই প্রতিবন্ধী নারীর শারীরিক পরিবর্তন দেখা দিলে বিষয়টি নিয়ে লোকজনের মাঝে আলোচনা শুরু হয়। পরে প্রতিবেশী ও পরিবারের লোকজন  নারীকে জিজ্ঞেস করলে তিনি ইশারায় আবুল কালামকে চিহ্নিত করে পরিবারের লোকজনদের ধর্ষণের বিষয়টি অবগত করেন। এরই কিছুদিন পর প্রতিবন্ধী নারীটি অসুস্থ হয়ে পড়লে ২০০৯ সালের ৯ সেপ্টেম্বর তাকে পীরগাছা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হলে সেখানে একটি ছেলে সন্তান জন্ম দেন তিনি।

পরবর্তীতে ধর্ষণের ঘটনা এবং সন্তানের স্বীকৃতি অস্বীকার করলে ২০০৯ সালের ১৬ সেপ্টেম্বর আবুল কালামকে আসামী করে আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন প্রতিবন্ধী মেয়েটির বাবা। আদালতের নির্দেশে ওই বছরের ২৫ ডিসেম্বর অভিযোগপত্র দাখিল করেন তৎকালীন পীরগাছা থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আব্দুস সামাদ সরকার। এরপর ধর্ষণে জন্ম নেয়া শিশুর এবং ধর্ষকের ডিএনএ পরীক্ষা ও ৯ জন সাক্ষীর সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে দীর্ঘ ১১ বছরেরও বেশি দিন পর আজ রোববার (১৭ জানুয়ারি) এ রায় ঘোষণা করা হয়।

এই মামলার রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আদালত -২ এর পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) জাহাঙ্গীর হোসেন তুহিন বলেন, যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ছাড়াও এক লাখ টাকা জরিমানা আদায় এবং ধর্ষকের ওয়ারিশ হিসেবে সম্পত্তির অংশীদারিত্বের রায় দিয়েছেন বিচারক। যদি ধর্ষকের কোন সম্পত্তি না থাকে তাহলে ওই শিশুর ব্যয়ভার রাষ্ট্রকে নেয়ারও নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2020 dainikjonokotha.com
Theme Developed BY ThemesBazar.Com