রবিবার, ২০ জুন ২০২১, ০২:৫৭ অপরাহ্ন

বিরামপুরে জোর পূর্বক বাড়িতে প্রবেশ করে হামলা-ভাংচুর; মামলার পর আটক-২

নয়ন হাসান, দিনাজপুর প্রতিনিধি
  • Update Time : বৃহস্পতিবার, ২৫ মার্চ, ২০২১

দিনাজপুরের বিরামপুরে অনধিকার জোর পূর্বক বাড়িতে প্রবেশ করে গৃহকর্তাকে মারধর করে জখম করেছে দুর্বৃত্তরা।

থানার মামলা সূত্র মতে জানা যায়-(২৩ মার্চ) বুধবার পৌর এলাকার কলেজবাজার (টিএন্ডটিপাড়া) মহল্লার মাহমুদুল ইসলামের বাড়িতে রাত্রী ৯:৩০ ঘটিকার সময় এলাকার কিছু বখাটে ছেলের দল তার বাড়িতে প্রবেশ করে বাড়ির আসবাবপত্র ভাংচুর ও বাড়ির মালিক মাহমুদুল ইসলামকে বেধড়ক মারপিট ও জখম করে এসময় গৃহকর্তার চিৎকার করলে এলাকার লোকজন এগিয়ে আসলে তারা পালিয়ে যায়। গুরুতর আহত মাহমুদুল ইসলামের চিৎকারে স্থানীয়রা ছুটে আসলে ততক্ষণে তাকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে এবং সেখান থেকে তারা দ্রুত পালিয়ে যায়। রক্তাক্ত অবস্থায় গুরুতর জখম মাহমুদুল ইসলামকে উদ্ধার করে রাতেই তাৎক্ষনিক বিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে হাসপাতালের কর্মরত চিকিৎসক তাকে রংপুরে পাঠানোর পরামর্শ প্রদান দেন।

এ ঘটনায় মাহমুদুল ইসলাম এর স্ত্রী রাহেলা আক্তার (৪৫) ২৩ মার্চ বুধবার বাদী হয়ে বিরামপুর থানায় মামলা দায়ের করেন। যার মামলা নং-৩২।

মামলার এজাহার ভুক্ত আসামীগণ হলেন ১। পৌর মহল্লার দোয়েল ষ্টুডিও মোড় এলাকার আশরাফ আলী মন্ডল এর পুত্র সাইমুন (২২) ২। ইসলামপাড়া মহল্লার হারিছুর ইসলামের পুত্র তানজিম ইসলাম তানিম (১৯) একই মহল্লার ৩। পল্টু মিয়ার পুত্র আরিফ ওরফে বুলু মিয়া (১৯) ও ৪। মৃত: নজরুল ইসলামের পুত্র নাবিল হোসেন(১৯) ৫। পূর্বজগন্নাথপুর মহল্লার আব্দুল মান্নান এর পুত্র রিশাদ(২০) এবং ৬। ইসলামপাড়া মহল্লার নুর ইসলামের পুত্র জিহাদ (১৫)।

থানায় এজাহারভূক্ত অনুযায়ী জানা যায় যে,পৌর এলাকার মাহমুদুল ইসলামের সালার মেয়েকে ইসলামপাড়া মহল্লার আরজি বর্ণিত ২নং আসামি তানজিম ইসলাম তানিম প্রায় সময় রাস্তা-ঘাটে বিরক্ত করতো। এমতাবস্থায় বাদীর ছোট ছেলে তুহিন মামাতো বোনকে ভবিষ্যতে আর কখন যেন বিরক্ত না করে এই কথা বললে আসামীগণ তুহিনের প্রতি চড়াও হয়।পরে আসামীগণ দলবদ্ধ হয়ে লাঠি, সোটা রড, চাকু,দেশীয় ধারালো অস্ত্র সাথে নিয়ে মাহমুদুলের বাড়িতে গেলে তুহিন না পেয়ে ক্ষিপ্ত হয়ে তুহিনের বাবাকে বেধড়ক মারপিট করে ও জখম হামলা এবং বাসায় কিছু আসবাসপত্র ভাংচুর করে।

এ বিষয়ে বাদীর নিকট জানতে তিনি বলেন- অবৈধভাবে জোর পূর্বক আমার স্বামীকে মারপিট, জখম করে ও আমার বাড়ীর উপর হামলা করে, আমি তাদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চাই।

বিরামপুর থানার তদন্ত (ওসি) মতিয়ার রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন-এ ঘটনায়
ভুক্তভোগীর স্ত্রী বাদী হয়ে বিরামপুর থানায় মামলা করেছেন। এজাহার ভূক্ত ২নং আসামী তানজিম ইসলাম তানিম ও ৬নং আসামী জিহাদকে গ্রেফতার করে বুধবার সকালে দিনাজপুর জেলা হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2020 dainikjonokotha.com
Theme Developed BY ThemesBazar.Com