সোমবার, ২৬ জুলাই ২০২১, ০২:০৪ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ:
ফুলবাড়ীতে কঠোর লকডাউন কার্যকরে কঠোর প্রশাসন ফুলবাড়ীতে তরুণদের উদ্যোগে বিনামূল্যে অক্সিজেন সেবা চালু কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরীতে ৫শ দুস্থ্য পরিবার পেল ঈদ উপহার লালমনিরহাট পৌরবাসীকে ঈদুল আযহার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন, জনতার মেয়র রেজাউল করিম স্বপন ফুলবাড়ীতে কেটে নেয়া ধান গাছ থেকে ফের ধান উৎপাদন পঞ্চগড়ে নদী ভাঙ্গন রক্ষার দাবিতে স্থানীয়দের মানববন্ধন  জোরপূর্বক জমি দখলের চেষ্টা; সংবাদ সম্মেলনে ভুক্তভোগীরা ফুলবাড়ীতে ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে ঈদ উপহার বিতরণ সচ্ছলরা পেয়েছেন গৃহহীনদের ঘর, প্রতিবাদে কুড়িগ্রামে মানববন্ধন উলিপুরে ১০ ছাত্রলীগ নেতার বহিষ্কারাদেশ প্রত্যাহার

এক থোকে ৪০ লাউ!

জনকথা ডেস্ক :
  • Update Time : মঙ্গলবার, ২৭ এপ্রিল, ২০২১

চৈত্র বৈশাখ মা‌সে লাউয়ের তরকা‌রি‌ খান না এমন বাঙালির সংখ‌্যা কম। গ্রা‌মে প্রায় প্রতি‌টি গেরস্ত বা‌ড়ি‌তে চো‌খে পড়ে লাউয়ের জাঙলা বা মাঁচা। সেই মাঁচায় ১০টি বা ১২টি লাউ ঝু‌লে থাকার চিত্রও চিরায়ত। কিন্তু, এক‌টি লাউ গা‌ছের এক‌টি থো‌কে যদি ঝোলে ৩৫টি লাউ! এমন বিরল ঘটনা দেখা গেছে কুড়িগ্রামের ভুরুঙ্গামারী উপজেলার বলদিয়া ইউনিয়নের পূর্ব কেদার গ্রামের  কৃষক আব্দুস ছালামের বাড়িতে। তার লাউগাছের মাঁচায় এমনটাই ঘটে‌ছে এবার। লাউগা‌ছের একটি গিঁটে ছোটবড় মিলে ৩৫টি লাউ ধরেছে। জাংলায় থোকার মতো ঝুলে আছে লাউগুলো। এই অভূতপূর্ব ঘটনা দেখতে ওই বাড়িতে প্রতি‌দিন উৎসুক মানুষের আনা‌গোনা চল‌ছে।

কৃষক আব্দুস ছালাম জানান, তার স্ত্রী জয়নব বেগম নি‌জে ওই লাউ গাছটির বীজ বপন করছেন। গাছটি বড় হওয়ার পর স্বাভাবিকভাবে ৫০টির মতো লাউ ধরেছে। বড় হওয়ার পর নিজেরা কিছু খেয়েছেন এবং কিছু বিক্রি করেছেন। এ অবস্থায় ক‌য়েক‌দিন আগে একটি থো‌কে অসংখ্য ফুল আসে। সেই ফুলগু‌লো থেকে একে এক অনেকগু‌লো লাউ বেরিয়ে আসতে থাকে। মোট ৪০টি লাউ ছিল ওই থোকে। কয়েকটি পেড়ে খাওয়া হয়েছে। এখন থোকার মতো করে ওই থোকে ৩৫টি লাউ ঝুলছে।

ভূরুঙ্গামারী উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মো. আসাদুজ্জামান বলেন,‘আমি নি‌জে ওই লাউগুলো দে‌খে‌ছি। প্রথম দি‌কে ৪০টি লাউ ছিল। এখন লাউ আছে ৩৫টি। এখনও ওই থোকের ভেতরে ছোট ছোট লাউ হচ্ছে। কিছু লাউ নষ্ট হয়েছে।’

এই কৃ‌ষি কর্মকর্তা আরও ব‌লেন, ‘কৃষক জাতের নাম বলতে পারেননি, বলেছেন বাড়িতে বীজ ছিল, স্থানীয় জাত। এটা অস্বাভা‌বিক ফল ধারণ। এটা অনেক সময় আমের ক্ষে‌ত্রে দেখা যায়। ত‌বে লাউ‌য়ের ক্ষে‌ত্রে এমনটা এর আগে আমার নজ‌রে আসেনি।’

এই কৃ‌ষি কর্মকর্তা আরও ব‌লেন, অস্বাভা‌বিক এই ফল‌নের বিষ‌য়ে বৈজ্ঞা‌নিক গবেষণার জন্য ছবি তুলে জেলা কৃষি সম্প্রসারণ দফতর ও বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা ইনস্টিটিউটে পাঠা‌নো হ‌য়ে‌ছে।’

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2020 dainikjonokotha.com
Theme Developed BY ThemesBazar.Com